ডোমারে শিল্পকলা একাডেমির সদস্য নির্বাচনকে ঘিরে অস্থিরতা, কার্যক্রম স্থগিত!

নীলফামারীনিউজ, ডোমার অফিস- নীলফামারীর ডোমার শিল্পকলা একাডেমির সদস্য নির্বাচনে গুরুতর অনিয়মের অভিযোগ উঠেছে। সাংস্কৃতিক সংগঠন এবং প্রকৃত শিল্পীদের বাদ দিয়ে সাংস্কৃতির সাথে যারা জড়িত নয়, এমন ব্যাক্তিদের নাম অর্ন্তভূক্ত করে বাছাইকৃত শিল্পীদের তালিকা গত বুধবার (২০ নভেম্বর) প্রকাশ করে যাচাই-বাছাই কমিটি।

এ ঘটনায় প্রকৃত শিল্পীদের মাঝে চরম ক্ষোভের সৃষ্টি হয়েছে। বঞ্চিত শিল্পীরা প্রকাশিত তালিকা বাতিল চেয়ে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার কাছে লিখিত অভিযোগ দায়ের করেছেন।

জানা গেছে, উপজেলার নব-নির্মিত ডোমার শিল্পকলা একাডেমির সদস্য সংগ্রহের জন্য ৫সদস্য বিশিষ্ট কমিটি গঠন করা হয়। কমিটির সদস্যরা হলেন- পদাধিকার বলে উপজেলা নির্বাহী অফিসার সভাপতি, সদস্য সচীব ডোমার মহিলা ডিগ্রী কলেজের অধ্যক্ষ শাহিনুল ইসলাম বাবু, সদস্য উপজেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি খায়রুল আলম বাবুল, সদস্য পৌর মুক্তিযোদ্ধা কমান্ডার ইলিয়াছ হোসেন ও সদস্য মুক্তিযোদ্ধা গোলাম মোস্তফা।

পূর্ণাঙ্গ কমিটি গঠনের লক্ষে সাংস্কৃতিক সংগঠনগুলোর সুপারিশসহ প্রকৃত শিল্পীদের কাছ থেকে দরখাস্ত আহব্বান করেন কমিটি। এর প্রেক্ষিতে ডোমার উপজেলার বিভিন্ন এলাকার সাংস্কৃতিক সংগঠনের সুপারিশের মাধ্যমে ৫শতাধিক শিল্পীর আবেদন জমা পড়ে। ওই কমিটি আবদনগুলো যাচাই-বাছাই শেষে বুধবার (২০ নভেম্বর) ২ শত ৫৯ জনকে শিল্পী নির্বাচন করে একটি তালিকা প্রকাশ করেন। প্রকাশিত তালিকায় প্রকৃত সাংস্কৃতিক সংগঠন এবং শিল্পীদের বাদ দিয়ে সাংস্কৃতিক সংগঠনের সাথে জড়িত নয়, এমন ব্যাক্তিদের নাম অর্ন্তভূক্ত করা হয়।

ডোমার শহরের প্রতিষ্ঠিত সংগঠন শহীদ ধীরাজ ও মিজান স্মৃতি পাঠাগারের সাধারন সম্পাদক ও ডাঙ্গাপাড়া সাংস্কৃতিক গোষ্ঠীর সাধারন সম্পাদককে সদস্য করা হয়নি। এমনকি সাংস্কৃতিক সংগঠনের তালিকা থেকেও ওই দুটি সংগঠনকে বাদ দেয়া হয়েছে। ফলে প্রকৃত শিল্পীদের মাঝে চরম ক্ষোভের সৃষ্টি হয়েছে। বঞ্চিত শিল্পীরা উপজেলা নির্বাহী অফিসারের কাছে তালিকা বাতিল চেয়ে গত বুধবার আবেদন করেন।

এ বিষয়ে শিল্পকলা একাডেমির পরিচালনা কমিটির সভাপতি ও উপজেলা নির্বাহী অফিসার উম্মে ফাতিমা জানান, অভিযোগ পাওয়ার পর সকল কার্যক্রম স্থগিত করে দেয়া হয়েছে।

‘এই গণমাধ্যমে প্রকাশিত কোন সংবাদ বা তথ্য কপি/পেষ্ট করে প্রকাশ করা কপিরাইট আইনে অবৈধ।’

‘সব ধরনের ঘটনা আমাদের জানাতে ০১৭১০৪৫৪৩০৬ নাম্বারে কল করুন।’