চিরিরবন্দরে পাঁচ বছরের শিশুকে ধর্ষণ, যুবক গ্রেপ্তার

মোহাম্মাদ মানিক হোসেন, চিরিরবন্দর (দিনাজপুর) প্রতিনিধি- দিনাজপুরের চিরিরবন্দরে পাঁচ বছর বয়সের এক শিশু ধর্ষণের শিকার হয়েছে। পুলিশ ধর্ষণের অভিযোগে মরসালিন (২২) নামে এক যুবককে গ্রেপ্তার করেছে। মঙ্গলবার (১৪ জানুয়ারি) চিরিরবন্দর উপজেলার অমরপুর ইউনিয়নের মথুরাপুর গ্রামে নির্মাণাধীন একটি বাড়িতে এই ঘটনা ঘটে। ধর্ষণের অভিযোগে আটক মরসালিন একই গ্রামের নুর হোসেনের ছেলে। ওই দিন সন্ধায় তাকে আটক করে পুলিশ।

জানা যায়, চিরিরবন্দর উপজেলার অমরপুর ইউনিয়নের মথুরাপুর গ্রামে ধর্ষণের শিকার শিশু কন্যা বাড়ির সমানে অন্যান্য শিশুদের সঙ্গে খেলা করছিল। এ সময় মরসালিন তাকে কৌশলে জনৈক আশরাফ আলীল নির্মাণাধীন বাড়ির ভেতরে নিয়ে গিয়ে জোরপূর্বক ধর্ষণ করে।

এ সময় শিশুটির চিৎকারে এলাকার লোকজন ছুটে আসলে মরসালিন পালিয়ে যায়। পরে শিশুটিকে উদ্ধার করে চিরিরবন্দর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়। অবস্থার অবনতি হলে বিকেলে তাকে দিনাজপুরের এম আব্দুর রহিম মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে রেফার করা হয়। শিশুটি বর্তমানে দিনাজপুরের এম আব্দুর রহিম মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছে।

চিরিরবন্দর থানা পুলিশ অভিযান চালিয়ে ধর্ষণের অভিযোগে মরসালিনকে আটক করলে। এই ঘটনায় শিশুর পিতা বাদী হয়ে চিরিরবন্দর থানায় একটি এজাহার দাখিল করেছে। চিরিরবন্দর থানার ওসি সুব্রত কুমার সরকার বিষয়টি নিশ্চিত করে জানান এই ঘটনায় একটি ধর্ষণ মামলা দায়ের হয়েছে। আসামিকে বুধবার সকালে কোর্টে চালান দেওয়া হবে।

‘এই গণমাধ্যমে প্রকাশিত কোন সংবাদ বা তথ্য কপি/পেষ্ট করে প্রকাশ করা কপিরাইট আইনে অবৈধ।’

‘সব ধরনের ঘটনা আমাদের জানাতে ০১৭১০৪৫৪৩০৬ নাম্বারে কল করুন।’