বাছাই সংবাদ

করোনা পরিস্থিতি বিবেচনায় ভিডিও কোয়ালিটি কমাচ্ছে ইউটিউব

নীলফামারীনিউজ, ডেস্ক রিপোর্ট-  বিশ্বজুড়েই ১ মাসের জন্য ভিডিও কোয়ালিটি কমিয়ে দিচ্ছে ইউটিউব। আজ থেকে সিদ্ধান্তটি কার্যকর হবে।

ডিফল্ট ভিডিও কোয়ালিটি নামিয়ে আনা হবে স্ট্যান্ডার্ড ডেফিনেশেনে (৪৮০ পিক্সেল)। তবে চাইলে এইচডি রেজুলেশনেও ভিডিও দেখা যাবে। তবে তা ব্যবহারকারীকে ম্যানুয়ালি সিলেক্ট করতে হবে।

করোনাভাইরাসের কারণে বিশ্বব্যাপী ব্যাপক লকডাউন অবস্থা সৃষ্টি হওয়ায় ভিডিও কনটেন্টের চাহিদা বেড়েছে ব্যাপক হারে। হঠাৎ এই বর্ধিত চাহিদার সঙ্গে খাপ খাওয়াতে ইউরোপে ভিডিও কোয়ালিটি কমানোর সিদ্ধান্ত নিয়েছিল ইউটিউব।

এর আগে ইউরোপিয়ান ইউনিয়ন, যুক্তরাজ্য ও সুইজারল্যান্ডে নিজেদের ভিডিও স্ট্রিমের মান কমিয়ে দিয়েছিল ইউটিউব। পরে সার্বিক দিক বিবেচনা করে মঙ্গলবারে পুরো বিশ্বে ৩০ দিনের জন্য ভিডিও স্ট্রিমের মান কম রাখার ঘোষণা দিয়েছে প্রতিষ্ঠানটি। — খবর প্রযুক্তিবিষয়ক সাইট সিনেটের।

মঙ্গলবার থেকে শুরু করে পরবর্তী কয়েকদিনের মধ্যেই সব দেশেই পরিবর্তিত হয়ে যাবে ইউটিউবের ভিডিও মান। ইউটিবের মাসিক ব্যবহারকারী সংখ্যা দুইশ’ কোটি। এদিকে, মানুষ বর্তমানে বাসায় সময় কাটানোয় গোটা ইউটিউব ব্যবহারের গতানুগতিক ছকেও এসেছে পরিবর্তন। মানুষ এখন বাড়তি সময় ব্যয় করছেন সাইটটিতে। – জানিয়েছে প্রতিষ্ঠানটি।

করোনাভাইরাস সংক্রমণ প্রতিরোধে বিশ্বব্যাপী বহু দেশে চলছে লকডাউন, বড় বড় শহর ও প্রদেশের নানা স্থানে চলছে কোয়ারেন্টিন। পরিস্থিতি সামাল দিতে হিমশিম খাচ্ছে স্বাস্থ্য সেবা প্রক্রিয়া। আর বড় অনেক শিল্প বন্ধ রেখেছে নিজেদের কার্যক্রম। এই বাস্তবতায় বাসায় বসে অফিসের কাজ করতে হচ্ছে বিশ্বের বহু মানুষকে।

এ সময়টিতে ইন্টারনেটের উপর চাপ কমাতে বিভিন্ন দেশের সরকারের অনুরোধে নিজেদের ভিডিও স্ট্রিমের মান কমিয়ে দিচ্ছে নেটফ্লিক্স, অ্যামাজনের মতো স্ট্রিম জায়ান্টরা। তবে, বৈশ্বিকভাবে ভিডিও স্ট্রিমের মান কমানোর তালিকায় ইউটিউবই প্রথম।