নীলফামারীতে ৩৭তম রবীন্দ্র সঙ্গীত সম্মেলন সম্পন্ন

নীলফামারীনিউজ, সিনিয়র স্পেশাল করেসপন্ডেন্ট- সকল সাম্প্রদায়িক অপশক্তি রুখে দিয়ে আলোর বার্তা ছড়ানোর প্রত্যাশায় শেষ হলো জাতীয় রবীন্দ্রসংগীত সম্মেলনের ৩৭তম আসর।

রোববার (১১ মার্চ) সমাপনী দিনে নীলফামারী শহরের বড় মাঠে আয়োজিত মঞ্চে উচ্চাঙ্গ সংগীত শিল্পী মঞ্জুশ্রী রায় ও লোকসংগীত শিল্পি উপেন্দ্র নাথ রায়কে উত্তরীয় প্রদানসহ পদক ও নগদ ৫০ হাজার টাকা করে প্রদান করা হয়।

.
এতে প্রধান অতিথি ছিলেন রবীন্দ্র বিশ্ব বিদ্যালয়ের উপাচার্য বিশ্বজিৎ ঘোষ। পরিষদের সভাপতি ড. সনজীদা খাতুনের সভাপতিত্বে বক্তব্য দেন- জাতীয় রবীন্দ্রসঙ্গীত সম্মেলন পরিষদের সাধারণ সম্পাদক বুলবুল ইসলাম ও পরিষদের নীলফামারী জেলা শাখার সভাপতি আহসান রহিম মঞ্জিল।

পরে সন্ধ্যায় প্রদীপ প্রজ্জ্বলন, রবিরশ্মি, আবৃত্তি, নৃত্য এবং সঙ্গীতানুষ্ঠান ও জাতীয় সংগীতের মধ্য দিয়ে আনুষ্ঠানিকতার সমাপ্তি ঘটে ৩৭তম বার্ষিক অধিবেশনের।


.
এর আগে সকালে নীলফামারী জেলা শহরের প্রধান শহীদ মিনারে পুষ্পমাল্য অর্পণ ও দুপুর ১২ টায় প্রতিনিধি সম্মেলন এবং প্রশিক্ষণ অনুষ্ঠিত হয়।

জমকালো আয়োজনের মধ্য দিয়ে গত ৯মার্চ নীলফামারী শহরের বড় মাঠে আনুষ্ঠানিক ভাবে শুরু হয়েছিল জাতীয় রবীন্দ্রসঙ্গীত সম্মেলন ও ৩৭তম অধিবেশন। এ সম্মেলনের উদ্বোধন করবেন সংস্কৃতিমন্ত্রী আসাদুজ্জামান নূর।

দেশের নানা অঞ্চল থেকে পাঁচ শতাধিক সাংস্কৃতিককর্মী অংশগ্রহণে মুখর করে তোলেন নীলফামারী শহর। সেইসাথে ৬৪ জেলার বরেণ্য রবীন্দ্র প্রেমীদের বরণ করতে ভিন্ন এক সাজে সাজানো হয়েছিল গোটা শহরকে।

‘এই গণমাধ্যমে প্রকাশিত কোন সংবাদ বা তথ্য কপি/পেষ্ট করে প্রকাশ করা কপিরাইট আইনে অবৈধ এবং দন্ডনীয় অপরাধ।’